03 September, 2008

কুয়েত এয়ারপোর্ট থেকে ধুসর গোধুলীর জন্য ...

KU284 এ H23 সীটে আমি বসেছি। সকাল ৫টা।
তখনো ঢাকার আকাশে আলো ফুটেনি।
প্লেনের আধো আলো আধো অন্ধকারে দেখি আমার বাম পাশে, মানে G23 তে, তিনি।

ঠিক, ধু গো, আপনি ঠিক ধরেছেন, তিনিই।
তবে কলাপাতা রঙের সালোয়ার কামিজ ছিলো না। ছিলো হাল্কা গোলাপী রঙের।
বেগম রোকেয়া স্টাইলে কলার, থ্রি কোয়ার্টার হাতা। স্মিত চেহারা।
হ্যা, চুল গুলো ধুসর যেমন লিখেছিলেন, সেরকমই।
সিনেমার গানের মত "বয়েস উন্নিশ কুড়িরে, এ যে চাক্কুর ছুরি রে..."

তারপরে?
তারপরে আর কী হয় ধুসর? আমি ভাবছিলাম জম্মান দেশে তখন সময় কতো। কফিতে চুমুক জমে, গল্পে গল্পে হাজার হাজার ফিট উপরে...

ঢাকা টু কয়েত, ৫ ঘন্টা ৪০ মিনিট।
সচল শাদী ডট কমের হ্যাকার ধুসর এবার ভেস্তে গেলেন।

আসল কাহিনিটা তবে বলেই ফেলি,

(ওপ্স, ল্যাপটপের চার্জ প্রায় শেষ, চার্জার ব্যাগেজে)

ততক্ষণ ধুসর গোধুলির জন্য বালিময় হাহাকার...

___

কুয়েত ইন্টা এয়ারপোর্ট
কুয়েতে সকাল ৯-১০।

0 মন্তব্য::

  © Blogger templates The Professional Template by Ourblogtemplates.com 2008

Back to TOP